মোবাইল ফোনের মাধ্যমে বিদ্যুৎ সংযোগ চালু ও বন্ধ করার পদ্ধতি আবিষ্কার

Loading...

জামালপুরে মাহফুজুর রহমান বুদু (২৩) নামের একজন বেকার যুবক মোবাইল ফোনের মাধ্যমে বহুদূর থেকেও নির্দিষ্ট কোনো বাড়ি-ঘর বা অফিসের বিদ্যুৎ সংযোগ চালু ও বন্ধ করার এক নতুন পদ্ধতি আবিষ্কার করেছেন। তিনি মেলান্দহ উপজেলার চাকদহ চরপাড়া গ্রামের আ. হক ভাণ্ডারির পুত্র। দরিদ্র পরিবারে জন্ম নিয়ে বেকার জীবনে ঘরে বসে মোবাইল নিয়ে গবেষণা করতে করতে মোবাইল মেসেজের মাধ্যমেই বিদ্যুৎ সংযোগ চালু ও বন্ধের নতুন পদ্ধতি আবিষ্কার করেছেন।

বৈদ্যুতিক কাজে মোবাইল ফোন ব্যবহারের নতুন পদ্ধতির উদ্ভাবক মাহফুজুর রহমান বুদু জানান, আজ থেকে সাড়ে তিন বছর আগে তিনি মোবাইল মেসেজের মাধ্যমে প্রথমে তার বেড রুমের সব বিদ্যুৎ সংযোগ চালু এবং বন্ধ করেন। এতে প্রথমে সে একবার সফল হলেও পরে ব্যর্থ হয়েছেন। তারপর তিনি চিন্তা করেন, মানুষ যদি তার পদ্ধতিটি সহজ ও সুন্দরভাবে ব্যবহার করতে না পারে তাহলে প্রকাশ করে কি হবে।

তাই তিনি বৈদ্যুতিক কাজে মোবাইল ফোন ব্যবহার নিশ্চিত করতে পুনরায় গবেষণা চালিয়ে যান। একপর্যায়ে তিনি মোবাইল মেসেজের মাধ্যমে বহুদূর থেকেও নির্দিষ্ট যেকোনো ঘর বা অফিসের সিলিং ফ্যান, বাতি, ফ্রিজ, টিভি ও বৈদ্যুতিক মটরসহ বিদ্যুতচালিত সকল সংযোগ বন্ধ ও চালু করতে সক্ষম হন। যা সারা বিশ্বের মানুষ ব্যবহার করার মতো উপযোগী।

তিনি এখন তার উদ্ভাবিত বৈদ্যুতিক কাজে মোবাইল ফোন ব্যবহারের নতুন পদ্ধতিটি মানুষের কল্যাণে ব্যাপক ব্যবহারের জন্য বিপণনে আগ্রহী। কিন্তু অর্থের অভাবে তিনি বহুল ব্যবহারের জন্য তার উদ্ভাবিত প্রদ্ধতিটি বাজারজাত করতে পারছেন না। তবে সরকারি বা বেসরকারি পৃষ্ঠপোষকতা পেলে তার পদ্ধতিটি আরও উন্নত করে বাজারজাত করার মাধ্যমে মানুষের কল্যাণে ও বৈদ্যুতিক প্রযুক্তির উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখতে পারবেন বলে তিনি দাবি করেছেন।

এ ব্যাপারে মেলান্দহ প্রেসক্লাবের সভাপতি সাংবাদিক হাজি আবুল হাশেম জানান, মোবাইল ফোনের মাধ্যমে বিদ্যুৎ সংযোগ চালু ও বন্ধের জন্য বেকার যুবক মাহফুজুর রহমান বুদুর উদ্ভাবিত পদ্ধতিটি তিনি দেখেছেন। এটা খুবই সহজ ও চমৎকার পদ্ধতি। তাই বুদুর এ পদ্ধতিটি মানুষের কল্যাণে ও বৈদ্যুতিক প্রযুক্তির উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখতে পারবে বলে তিনি আশাবাদী।

পোষ্টটি লিখেছেন: বিশ্ব বিবেক

বিশ্ব বিবেক এই ব্লগে 3317 টি পোষ্ট লিখেছেন .

Loading...
পোস্টটি ভাল লাগলে লাইক দিন